রাজশাহী সোমবার, ২২শে এপ্রিল ২০২৪, ১০ই বৈশাখ ১৪৩১

ভোলাহাটে মাটি কাটতে বাধা দেয়ায় জমির মালিককে হুমকি


প্রকাশিত:
১১ মার্চ ২০২৪ ১৮:২৭

আপডেট:
২২ এপ্রিল ২০২৪ ২১:২৫

ছবি: রাজশাহী পোস্ট

চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভোলাহাট উপজেলার দলদলী ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন বারইপাড়া গ্রামে আম বাগানের মাটি কাটতে না দেয়ায় মাটি খেকো চক্রের সদস্যরা জমির মালিককে দেখে নেয়ার হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে।

জমির মালিক বরইপাড়া গ্রামের নুরুল ইসলাম অভিযোগ করে বলেন, উপজেলার হরিপুর গ্রামের জিয়াউর আমাকে নানা প্রকার প্রলোভন দেখিয়ে আমার আম বাগানের মাটি এক্সকাভেটর (ভেক) দিয়ে কেটে ইটভাটায় বিক্রি করার জন্য তিন বছর আগে সাড়ে তিন লাখ টাকায় ক্রয় করে। সে সময় কিছু মাটি কেটে ইটভাটায় বিক্রি করে। বাকি মাটি কাটা শুরু করলে এসিল্যান্ড তাদের ধরে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করে মাটি কাটা বন্ধ করে দেন।

তিনি বলেন, জরিমানার কদিন যেতে না যেতেই আবার মাটি কাটা শুরু করে। মাটি কাটতে বাধা দিয়ে সরকারি অনুমতি নিয়ে আসতে বলি। তারা আমাকে বলে চেয়ারম্যানের কাছে অনুমতির কাগজ আছে। চেয়ারম্যানকে ফোন করলে তিনি বলেন, ওদের কাছে অনুমতি না থাকলে মাটি কাটতে পারে? 

নুরুল ইসলাম আরও জানান, আমি ১০ মার্চ উপজেলা ভূমি অফিস গিয়ে মাটি কাটার অনুমতির বিষয়ে জানতে চাইলে এসিল্যান্ড অফিসে না থাকায় অনুমতির বিষয়ে কেউ কিছু জানাতে পারেননি। ফলে আমার জমির মাটি কাটতে বাধা দিয়েছি। এখন মাটি কাটা চক্রের মূলহোতা জিয়াউর হুমকি দিয়ে বলেন, মাটি কাটতে না দিলে ৫ লাখ টাকা আদায় করবে।

এ ব্যাপারে জিয়াউর রহমানের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, এসিল্যান্ড অফিসে আবেদন করেছি। এসিল্যান্ড অফিসের অনুমতি নিয়ে মাটি কাটছি।

দলদলী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ মোজাম্মেল হক চুটুর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আমি অনুমতি দিনি। তাঁদের মাটি কাটার বিষয়ে অনুমতি আছে কি না তাও জানিনা। এটা এসিল্যান্ড অফিস ভালো বলেতে পারবে।

ভারপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও এসিল্যান্ড আঞ্জুমান আরা বলেন, জমির মালিক অভিযোগ করলে যাচাইবাচাই করে দেখব। আপনারা (প্রতিবেদক) বললেই তো আমি কোনো সিদ্ধান্ত নিতে পারবো না।

 

 

আরপি/এসআর



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top