রাজশাহী বৃহঃস্পতিবার, ২৫শে এপ্রিল ২০২৪, ১২ই বৈশাখ ১৪৩১

দীর্ঘ প্রতিক্ষার অবসান ঘটিয়ে চালু হলো সোনামসজিদ ইমগ্রেশন


প্রকাশিত:
১৭ মার্চ ২০২৩ ০৩:৩২

আপডেট:
২৫ এপ্রিল ২০২৪ ০০:৪১

ছবি: গ্রেফতার আসামি

অবশেষে দীর্ঘ প্রতিক্ষার পর তিন বছর এক দিন বন্ধ থাকার পর চালু হলো চাঁপাইনবাবগঞ্জের সোনামসজিদ-মহদিপুর স্থলবন্দরের ইমিগ্রেশন কার্যক্রম। এতে সোনামসজিদ-মহদিপুর স্থলবন্দরের ইমিগ্রেশন দিয়ে সহজেই আসা যাওয়া করতে পারবেন যে কোন পাসপোর্টধারী যাত্রী।

বৃহস্পতিবার (১৬ মার্চ) দুপুরে সোনামসজিদ জিরো পয়েন্টে ফিতা কেটে এই ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন ভারতীয় সহকারী হাইকমিশনার মনোজ কুমার। 

এ সময় উদ্বোধনকালে চাঁপাইনবাবগঞ্জ চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি আব্দুল ওয়াহেদ বলেন, করোনার কারণে এই ইমিগ্রেশন দিয়ে পাসপোর্টধারী যাত্রী যাতায়াত বন্ধ ছিল। আর আমি গত বছরের ডিসেম্বরে চাঁপাইনবাবগঞ্জ চেম্বার অব কমার্সের সভাপতির দায়িত্ব নেয়ার পর প্রথম প্রতিশ্রুতি ছিলো সোনামসজিদ-মহদিপুর স্থলবন্দরের ইমিগ্রেশন চালু করা। এরই ফলশ্রুতিতে মাত্র ৩ মাসের ব্যবধানে বন্দর সংক্রান্ত সকল দপ্তরে যোগাযোগ করে আজ ১৬ মার্চ দুপুরে ভারতীয় সহকারী হাইকমিশনার মনোজ কুমারের মাধ্যমে এই ইমিগ্রেশনের কার্যক্রম উদ্বোধন করা হলো।

যদিও গত ১২ মার্চ রোববার সোনামসজিদ-মহদিপুর স্থলবন্দরের ইমিগ্রেশন চালু হবার কথা ছিলো। কিন্তু কিছু কাগজ পত্রের জটিলতায় তা সম্ভব হয়নি। এখন আমি ২৫ জন ব্যবসায়ীকে নিয়ে এই ইমিগ্রেশন দিয়ে ভারতে যাচ্ছি মহদিপুর আমদানী-রপ্তানীকারক ব্যবসায়ীদের সাথে একটি ব্যবসায়িক মতবিনিময় সভায় যোগ দেয়ার জন্য। এছাড়াও এখন এই বন্দর দিয়ে দিনে ২ শত থেকে আড়াইশো ভারতীয় পণ্যবাহি গাড়ি প্রবেশ করলেও আগামী ছয় মাসের মধ্যে এই গাড়ির সংখ্যা বেড়ে ৬ শততে পৌঁছবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

মেসবাউল হক, বায়োজিতসহ কয়েকজন পাসপোর্টধারি যাত্রি বলেন, আমরা সোনামসজিদ স্থলবন্দরে গমসহ বিভিন্ন পণ্য আমদানি করি। তাই মাঝে মাঝে ব্যবসায়িক কাজে আমাদের ভারতে যাওয়া লাগে। কিন্তু সোনামসজিদ-মহদিপুর স্থলবন্দরের ইমিগ্রেশন কার্যক্রম বন্ধ থাকায় আমাদের বেনাপোল দিয়ে যেতে হত। এতে প্রচুর ভোগান্তি পোহাতে হত। টাকাও বেশি খরচ হত। আজকে থেকে এই ইমিগ্রেশন দিয়ে ভারতে যেতে ও আসতে পারব। এতে আমাদের ভোগান্তিও কম হবে।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে চাঁপাইনবাবগঞ্জ-১ আসনের সংসদ সদস্য ডা. সামিল উদ্দিন আহমেদ শিমুল, চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য জিয়াউর রহমান, মহিলা সাংসদ ফেরদৌসী ইসলাম জেসী, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা রুহুল আমিন, মহদিপুর স্থলবন্দর কাস্টমসের সহকারী কমিশনার দেবাশীষ মুখোপাধ্যায়, শিবগঞ্জ থানার ওসি চৌধুরী জোবায়ের আহম্মদ ও সোনামসজিদ স্থলবন্দর সিএন্ডএফ এজেন্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি ইসমাইল হোসেনসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, ২০২০ সালের ১৫ মার্চ সারাদেশে করোনাভাইরাস বেড়ে যাওয়ায় সোনামসজিদ ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট দিয়ে যাত্রী যাতায়াত বন্ধ করা হয়। সে হিসেবে প্রায় তিন বছর ধরে বন্ধ রয়েছে এ ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট। 

 

 

আরপি/এসআর-০৯



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top