রাজশাহী বৃহঃস্পতিবার, ২২শে ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ই ফাল্গুন ১৪৩০


লালপুরে আ.লীগ নেতা হত্যার ঘটনায় শিবির নেতাসহ গ্রেফতার ৫


প্রকাশিত:
৫ সেপ্টেম্বর ২০২৩ ০২:১০

আপডেট:
৫ সেপ্টেম্বর ২০২৩ ০৩:২১

ছবি: গ্রেফতার আসামিরা

নাটোরের লালপুরে আওয়ামী লীগ নেতা ওসমান গনিকে কুপিয়ে ও হাত পায়ের রগ কেটে হত্যার ঘটনায় সাবেক ছাত্র শিবির নেতাসহ পাঁচজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার (৪ সেপ্টেম্বর) দুপুরে গ্রেফতারদের নাটোর আদালতে পাঠানো হয়।

নিহত ওসমান গনির ভাই কুতুব উদ্দিন রোববার রাতে ২৫ জনকে আসামি করে মামলা করেন। ওসমান গনি কদিমচিলান ইউনিয়নের ৫ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

আরও পড়ুন: বিএনপি আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর কাছে করুণা ভিক্ষা করছে: কাদের

গ্রেফতাররা হলেন- উপজেলার পুকুরপাড়া গ্রামের মোখলেসুর রহমানের ছেলে ও নাটোর জেলা ছাত্র শিবিরের সাবেক সভাপতি মহসিন আলম (২৮), মৃত তৈয়ব আলী সরদারের ছেলে মোখলেসুর রহমান (৫৫), ডাঙ্গাপাড়া গ্রামের মৃত নসিম উদ্দিনের ছেলে আব্দুল লতিফ প্রামানিক (৫৫), দুয়ারিয়া গ্রামের নওশাদ আলীর ছেলে নাদিম (৩৪) ও আফসারের ছেলে জাকিরুল ইসলাম (৩০)।

বিষয়টি নিশ্চিত করে লালপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) উজ্জল হোসেন জানান, রোববার সকাল সাড়ে সাতটার দিকে বাড়ি থেকে বের হয়ে চা খেতে যান ওসমান গনি। ওই সময় কয়েকজন ধারালো অস্ত্র হাতে চায়ের দোকানে গিয়ে ওসমানকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে পায়ের ও হাতের রগ কেটে দেন। পরে তার মৃত্যু নিশ্চিত না হওয়া পর্যন্ত তাকে কোপাতে থাকেন তারা।

তিনি জানান, ওই সময় ওসমান গনিকে বাঁচাতে কাউকে কাছে যেতে দেননি হামলাকারীরা। পরে মৃত্যু নিশ্চিত করে তারা ঘটনাস্থল ছাড়েন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে আলামত সংগ্রহ করে। পরে মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়।

নিহত ওসমান গনি কদিমচিলান ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক হত্যা মামলার প্রধান অভিযুক্ত ছিলেন। সম্প্রতি তিনি জামিন নিয়ে বাড়িতে অবস্থান করছিলেন। তারই জেরে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটতে পারে বলে ধারণা করছে পুলিশ।

 

 

 

আরপি/এসআর-১১



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top