রাজশাহী রবিবার, ১৪ই এপ্রিল ২০২৪, ১লা বৈশাখ ১৪৩১


পাবনায় পুলিশের বিরুদ্ধে যুবককে পরিকল্পিতভাবে হত্যার অভিযোগ


প্রকাশিত:
১০ জুলাই ২০২০ ০১:০৪

আপডেট:
১৪ এপ্রিল ২০২৪ ০০:২৮

নিহত তানজিবের পরিবারের সংবাদ সম্মেলন

পাবনায় পুলিশের সাথে বন্দুক যুদ্ধে নিহত তানজিবের পরিবার সংবাদ সম্মেলন করেছে। আজ দুপুরে পাবনা প্রেসক্লাবের ভিআইপি মিলনায়তনে এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে নিহতের ভাগ্নে ইয়াসির আরাফাত জানান, নিহত তানজীব পাবনা জেলা স্কুলের মেধাবী ছাত্র ছিলেন। এরপর পাবনা এডওয়ার্ড কলেজ থেকে মাষ্টার্স পাশ করেন। তার বিরুদ্ধে এলাকার ২টি মারামারির মামলা ছিল।
স্থানীয় ভূমিদস্যু, সন্ত্রাসী ও মাদক ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে পুলিশ টাকা খেয়ে নিরীহ, নিরাপরাধ তানজীবসহ তার ৬ বন্ধুকে থানায় ধরে নিয়ে আসে এবং থানার ভিতরেই তানজীবকে নির্যাতন করে হত্যা করা হয়। পরে স্থানীয় রামচন্দ্রপুর সুইস গেটে বন্দুক যুদ্ধের নাটক করা হয়। তিনি বলেন, নিহত তানজীবের পায়ের রগ কাটা ছিল।

তারা তানজীবকে হত্যার ঘটনায় বিচার বিভাগীয় তদন্তের দাবি জানান, সেই সাথে দায়ী পাবনার পুলিশ সুপারসহ পুলিশ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের কাছে জোর দাবি জানান।

সংবাদ সম্মেলনে দাবি করা হয়, নিহত তানজীব ছাত্রলীগ ও পরে যুবলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত ছিল। এছাড়া সে এলপি গ্যাস সিলিন্ডারের পরিবেশক ও একটি জেন্টস পারলার পরিচালনা করতেন। নিহত তানজীবের ৩ বছরের একটি কন্যা সন্তান রয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, নিহত তানজীবের স্ত্রী মেঘনা খাতুন, মা মলিনা খাতুন ও বাবা বাবু সেখসহ এলাকাবাসী।

আরপি/এএন-৫



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top