রাজশাহী শনিবার, ২রা মার্চ ২০২৪, ২০শে ফাল্গুন ১৪৩০


ভর্তি পরীক্ষা: ৫৫ বছর বয়সেও স্বপ্নপূরণে বেলায়েত


প্রকাশিত:
২৬ জুলাই ২০২২ ০৩:৪১

আপডেট:
২৬ জুলাই ২০২২ ০৭:৩৯

ফাইল ছবি

স্বপ্নপূরণে এবার রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ভর্তি পরীক্ষায় বসছেন ৫৫ বছর বয়সী সেই বেলায়েত শেখ। শত প্রতিবন্ধকতা পেরিয়ে উচ্চ শিক্ষা অর্জনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে (ঢাবি) পরীক্ষা দিয়েছিলেন বেলায়েত শেখ৷ গত ১১ জুন অনুষ্ঠিত ঢাবির সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের (ঘ ইউনিট) ভর্তি পরীক্ষায় তিনি অংশ নিয়েছিলেন।

আরও পড়ুন:ভর্তি পরীক্ষা কাল: রাবির সার্বিক প্রস্তুতি সম্পন্ন

১৯৬৮ সালে জন্ম নেওয়া বেলায়েত শেখের ছোট থেকেই পড়াশোনার প্রতি ছিল প্রবল আগ্রহ। কিন্তু অভাবের সংসারের পরিবারের হাল ধরতে গিয়ে আর পড়াশুনাটাই করা হলো না তার। কিন্ত তার প্রবল ইচ্ছাশক্তি থেকে আবার শুরু করেছেন পড়াশোনা।

আরও পড়ুন: ফুলগাছে কেড়ে নিলো শিশুর প্রাণ

মঙ্গলবার (২৬ জুলাই) ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষে ‘এ’ ইউনিটে সকাল ৯টা থেকে ১০টা পর্যন্ত (এক ঘণ্টা) প্রথম শিফটে মমতাজ উদ্দিন আহমেদ একাডেমিক বিল্ডিংয়ে ৪০৬ নম্বর কক্ষে পরীক্ষা দিলেন তিনি।

১৯৮৩ সালে তিনি এসএসসি পরীক্ষার্থী দেওয়ার কথা ছিল তার। কিন্তু সে সময় বাবা গুরুতর অসুস্থ হয়ে যাওয়ায় সংসারের হাল ধরতে হয়েছে তাকে। পরে আর শিক্ষাজীবন সচল রাখা হয়নি। পরে ২০১৭ সালে নবম শ্রেণিতে ঢাকার বাসাবোর দারুল ইসলাম আলিম মাদরাসায় পড়ালেখা শুরু করেন। ২০১৯ সালে ৫২ বছর বয়সে এসএসসি পরীক্ষা দেন এবং জিপিএ ৪.৪৩ পেয়ে উত্তীর্ণ হন। ২০২২ সালে রামপুরার মহানগর কারিগরি স্কুল অ্যান্ড কলেজ থেকে এইচএসসিতে জিপিএ ৪.৫৮ পেয়ে উত্তীর্ণ হন তিনি।

আরও পড়ুন: বিএনপির আহবায়ক আবু সাঈদ চাঁদের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ ও অবাঞ্চিত ঘোষণা

নিজের হতাশা এবং আক্ষেপের জায়গা থেকে বেলায়েত বলেন, ‘সংসারের হাল ধরতে গিয়ে যেহেতু নিজে পড়তে পারিনি। তাই চেয়েছিলাম ভাইদের লেখাপড়া করিয়ে উচ্চশিক্ষিত করবো। কিন্তু সেটাও পারিনি। এরপর নিজের সন্তানদের পড়াতে চেয়েছিলাম। কিন্তু সেক্ষেত্রেও হয়েছি ব্যর্থ। বড় ছেলে অনার্সে দুই সেমিস্টারের পর আর পড়েনি। মেয়েটা মেধাবী ছিল। ভেবেছিলাম ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াবো। কিন্তু সেটাও পারিনি। পরে নিজের ক্ষোভ থেকেই আমি পড়ালেখা শুরু করি।’

আরও পড়ুন: চেলসিকে হারিয়ে টানা চতুর্থ ম্যাচে জয় পেলো আর্সেনাল

রাবিতে পরীক্ষার প্রস্তুতির বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘১৭ দিন ধরে টানা আমি অসুস্থ ছিলাম। এখন কিছুটা পড়াশোনা করেছি। এই বয়সে এটা সাগর পাড়ি দেওয়ার মতো। এই শরীর নিয়ে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে পরীক্ষা দিতে যাবো। নিজের সর্বোচ্চটা দিয়ে যেন স্বপ্নটা যেন পূরণ করতে পারি।’

আরও পড়ুন: আরএমপি’র অভিযানে মাদকদ্রব্য উদ্ধারসহ গ্রেফতার ৩৩

তিনি আরও বলেন, ‘সংসার পরিচালনা এবং কাজ করেও যে লেখাপড়া করা যায়, সেটা বর্তমান প্রজন্মকে দেখাতে চাই, সুশিক্ষায় শিক্ষিত হতে চাই, তাহলে দেশ উন্নত হবে, সমাজ উন্নত হবে। তাহলে আপনি কারোর ক্ষতি করতে পারবেন না।’

 

আরপি/ এসএইচ



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top