রাজশাহী রবিবার, ২৬শে জুন ২০২২, ১৩ই আষাঢ় ১৪২৯


‘ফোন কলে কুসিকের ফল পাল্টানোর খবর গুজব’


প্রকাশিত:
২০ জুন ২০২২ ১৬:০৮

আপডেট:
২০ জুন ২০২২ ১৬:২৯

ছবি: মতবিনিময়

কুমিল্লা সিটি নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণার শেষ দিকে রিটার্নিং কর্মকর্তা শাহেদুন্নবীর বিরুদ্ধে ফোন কলে ভোটের ফলাফল পাল্টানোর যে অভিযোগ এসেছে তা গুজব বলে মন্তব্য করেছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল। তিনি বলেছেন, এমন কোনো ঘটনা ঘটেনি। এটা আমাদের দেশের কালচার, এটা গুজব। মেশিনের ফল অথবা হাতের রেজাল্ট আমরা ওয়েবসাইটে তুলে দিয়েছি।

সোমবার (২০ জুন) বেলা ১১টার দিকে কুমিল্লা সিটি নির্বাচন নিয়ে মতবিনিময়কালে এমন মন্তব্য করেন তিনি।

গত বুধবার (১৫ জুন) কুমিল্লা সিটির ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। অত্যন্ত শান্তিপূর্ণভাবে হওয়া ভোটগ্রহণ নিয়ে কোনো প্রার্থীরই তেমন অভিযোগ ছিল না।

ভোটের ফলাফল ঘোষণার শুরুর থেকেও পরিস্থিতি ছিল শান্তিপূর্ণ। তবে ফল ঘোষণার একেবারে শেষ দিকে এসে চরম উত্তেজনা তৈরি হয়। বিশেষ করে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী আরফানুল হক এবং স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মনিরুল হকের ভোটের ব্যবধান অনেক কম থাকায় এই উত্তেজনার সৃষ্টি হয়।

দুইপক্ষের কর্মী-সমর্থকেরা মুখোমুখি হন। হইচই, হট্টগোল ও বিশৃঙ্খলার কারণে কিছু সময় ফলাফল ঘোষণা বন্ধ রাখতে বাধ্য হন রিটার্নিং কর্মকর্তা। পরে ভোটের ফলাফল ঘোষণা করেন তিনি।

ঘোষিত ফলাফলে ৩৪৩ ভোটের ব্যবধানে মনিরুলকে হারিয়ে কুমিল্লা সিটির নতুন মেয়র নির্বাচিত হন নৌকা প্রতীকের আরফানুল হক রিফাত।

ফলাফল ঘোষণার পর তা মেনে নেননি মনিরুল হক সাক্কু। নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে ‘ইলেকশন ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের’অভিযোগ আনেন বিএনপি থেকে বহিষ্কৃত সাক্কু।

কিন্তু শেষ দিকে টয়লেটে যাওয়ার কথা বলে নির্বাচনী কর্মকর্তা শাহেদুন্নবী এক ফোন কলে ভোটের ফল পাল্টে দিয়েছেন বলে অভিযোগ আসে।

সোমবার বিষয়টি নিয়ে প্রশ্ন করা হলে প্রধান নির্বাচন কমিশনার বলেন, ‘শেষ মুহূর্তে ফোনে ফল পাল্টে যায় এটা একেবারে অসম্ভব। একটা বা দুইটা টেলিফোন আমি নিজেও করেছিলাম। আমাদের রিটার্নিং অফিসার আমাকে খুব বিপর্যস্ত অবস্থায় ফোন করে বললেন, ‘আমি বিপদে পড়েছি’। আমি সেখানে প্রচণ্ড শব্দ শুনতে পাচ্ছিলাম। আমি ভাবলাম তাকে মারধর করা হচ্ছে। এরপর আমি ডিসি-এসপিকে ফোন করেছিলাম। তারা তখন জানালেন তাৎক্ষণিক বিষয়টি দেখছেন। এরপর রিটার্নিং অফিসারকে বললাম সমস্যা হবে না। পরে তিনি জানালেন পুলিশ এসেছে মানুষ সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। উচ্ছৃঙ্খল ঘটনা মাত্র ১৫ মিনিট ছিল। এরপর তিনি স্বাচ্ছন্দ্যে ফলাফল ঘোষণা করলেন সেটি আমরা দেখেছি।’

সিইসি আরও বলেন, আসলে এমন খবর আমাদের দেশের কালচার। এটা গুজব। মেশিনের ফল অথবা হাতের রেজাল্ট আমরা ওয়েবসাইটে তুলে দিয়েছি। এমন ঘটনা ঘটেনি।

মতবিনিময়কালে কুমিল্লার ভোটের সময় স্থানীয় সংসদ সদস্য আ ক ম বাহাউদ্দিন বাহারকে এলাকা ত্যাগ করতে ইসির নির্দেশ দেওয়ার বিষয়টি নিয়েও কথা বলেন কাজী হাবিবুল আউয়াল। বলেন, ভোটের সময় এমপি বাহারকে স্থান ত্যাগের নির্দেশ দেওয়া হয়নি, আইন অনুযায়ী অনুরোধ করা হয়েছিল।

নির্বাচন কমিশনার বেগম রাশিদা সুলতানা, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আহসান হাবীব খান, মো. আলমগীর, হুমায়ুন কবীর খোন্দকার প্রধান নির্বাচন কমিশনারের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন।

 

 

আরপি/এসআর



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top