রাজশাহী সোমবার, ১৭ই জুন ২০২৪, ৩রা আষাঢ় ১৪৩১


সড়ক নির্মাণের জেরে আ.লীগ-স্বেচ্ছাসেবক লীগের সংঘর্ষ, আহত ১২


প্রকাশিত:
১৭ আগস্ট ২০২৩ ২১:৪৮

আপডেট:
১৭ জুন ২০২৪ ০৪:২৭

প্রতীকী ছবি

সড়ক নির্মাণকাজ নিয়ে বিরোধের জেরে রাঙামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলার খেদারমারা ইউনিয়নের দুরছড়ি বাজারে আওয়ামী লীগ ও স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতাকর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষে অন্তত ১২ জন আহত হয়েছেন।

বুধবার (১৬ আগস্ট) রাতে এই ঘটনা ঘটে। আহতদের মধ্যে ৬ জনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাদের খাগড়াছড়ির জেনারেল হাসপাতালে রেফার করা হয়।

বাঘাইছড়ি থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইশতিয়াক আহম্মদ দুই গ্রুপের মারামারি ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানিয়েছেন, ‘ঘটনার পর এলাকার অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়ন করা হয়েছে এবং ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের আটকের চেষ্টা চলছে।’

আরও পড়ুন: রাজশাহীসহ ১৮ জেলায় ৬০ কি.মি বেগে ঝড়ো হাওয়ার আভাস

স্থানীয়রা বলছেন, রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের অর্থায়নে দুরছড়ি বাজারে একটি বাজারের শেড নির্মাণ করা হচ্ছে। কিন্তু বাজার শেডটির নির্মাণ খরচ কমানোর জন্য সড়কে কাজ করার সিদ্ধান্ত নেয় বাজার কমিটি ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মদন কান্তি দে। তখন ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল জালাল বিকল্প সড়ক তৈরি না করে বাজার শেড নির্মাণে বাধা দেয়। এ নিয়ে বিরোধের জেরে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মদন কান্তি দের নেতৃত্বে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা স্বেচ্ছাসেবকলীগের আব্দুল জালাল, সাংগঠনিক সম্পাদক নারায়ণসহ বেশ কয়েকজনকে মারধর করে। পরে স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতাকর্মীরাও সংগঠিত হয়ে পাল্টা হামলা চালালে উভয় পক্ষে সংঘর্ষে জড়িয়ে পরে এবং এই ঘটনায় অন্তত ১২ জন আহত হয়।

বাঘাইছড়ি উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আবু নাছের জানান, নিজেদের মধ্যে মারামরির ঘটনা ঘটেছে। সিনিয়রদের সঙ্গে আলোচনা করে তদন্ত কমিটি গঠন করে দোষীদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বাঘাইছড়ি উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গিয়াস উদ্দিন জানান, খেদারমারা ইউনিয়নের দুরছড়ি বাজারে নিজেদের মধ্যে একটু ঝামেলা হয়েছে। আহতদের চিকিৎসার ব্যবস্থা করছি। বাকিটা পরে জানাব।

আরও পড়ুন: বিচারপতিকে নিয়ে বিরুপ মন্তব্য, দিনাজপুরের মেয়রকে তলব

বাঘাইছড়ি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. বিশ্বজিৎ দাশ জানান, দুই পক্ষের মারামারিতে আহত ১২ জন হাসপাতালে আসে। তাদের মধ্যে ৬ জনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় খাগড়াছড়িতে রেফার করা হয়। বাকিদের বাঘাইছড়ি হাসপাতালে চিকিৎসা চলছে।

 

 

 

আরপি/এসআর-০৪



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top