রাজশাহী বৃহঃস্পতিবার, ৪ঠা মার্চ ২০২১, ২১শে ফাল্গুন ১৪২৭


জমি লিখে না দেয়ায় মাকে কুপিয়ে হত্যা


প্রকাশিত:
২২ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ১৩:২৬

আপডেট:
৪ মার্চ ২০২১ ১৫:২৫

প্রতিকী ছবি

শরীয়তপুরের গোসাইরহাট উপজেলায় জমি লিখে না দেওয়ায় কুড়াল দিয়ে মাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে ছেলে।রোববার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে উপজেলার নাগেরপাড়া ইউনিয়নের লক্ষ্মীপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এদিকে এ ঘটনায় ছেলেকে আটক করেছে গোসাইরহাট থানা পুলিশ। নিহত মায়ের নাম আনোয়ারা বেগম (৬০)। তিনি লক্ষ্মীপুর গ্রামের ঢালীরহাট এলাকার আব্দুল মতিন খাঁর স্ত্রী।

নিহতের স্বজন ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, মাগরিব নামাজ শেষে চা তৈরি করার জন্য রান্নাঘরে যাচ্ছিলেন আনোয়ারা বেগম। এ সময় তার মেঝ ছেলে আব্দুল মালেক (৪০) মায়ের মাথায় কুড়াল দিয়ে কোপ দেয়। তখন মা আনোয়ারা বেগম চিৎকার করে মাটিতে পড়ে যান।

এ সময় স্বজনরা এসে দেখতে পান, মালেক খান রক্তাক্ত কুড়াল হাতে দাঁড়িয়ে আছে এবং মা আনোয়ারা বেগম গুরুতর অবস্থায় মাটিতে। আনোয়ারা বেগমকে স্বজনরা উদ্ধার করে গোসাইরহাট হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। পরে ছেলেকে আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দেন স্থানীয়রা।

নিহতের অপর পুত্রবধূ পপি আক্তার বলেন, জায়গা-জমি বিষয় নিয়ে মাঝে-মধ্যে মা ছেলের মধ্যে ঝগড়া হতো। কিন্তু ঘটনার দিন কোনো রকম ঝগড়া বিবাদ ছাড়াই হঠাৎ আমি শাশুড়ির চিৎকার শুনে ঘরের বাইরে গিয়ে দেখি রক্তাক্ত অবস্থায় তিনি পড়ে আছেন এবং আমার ভাসুর সেখানে কুড়াল হাতে দাঁড়িয়ে আছেন। আমি ও অন্যরা ঘটনাস্থলে গেলে ভাসুর ও তার স্ত্রী আয়েশা বেগম পালিয়ে যায়।

গোসাইরহাট থানার ওসি মোল্লা সোহেব আলী জানান, জমি লিখে না দেয়ায় কুড়াল দিয়ে মাকে হত্যা করেছে ছেলে।এ ঘটনায় নিহতের অভিযুক্ত ছেলেকে আটক করা হয়েছে এবং তার বিরুদ্ধে একটি হত্যা মামলা করা হয়েছে। আসামিকে আদালতে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে।

আরপি/ এসআই-৩



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top