রাজশাহী শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২ই ফাল্গুন ১৪৩০


সালিশে ডেকে কুপিয়ে হত্যা, দুই ভাইসহ গ্রেফতার তিন


প্রকাশিত:
২৫ মার্চ ২০২৩ ০৫:৩৮

আপডেট:
২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ০৪:৫২

ছবি: গ্রেফতার আসামিরা

বগুড়ার আদমদীঘিতে সালিশের নামে ডেকে নিয়ে কুপিয়ে আমিনুল ইসলামকে (৪০) হত্যা মামলায় দুই সহদরসহ তিন জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

গ্রেফতাররা হলেন, আদমদীঘির লক্ষীপুর গ্রামের আইয়ুব আলীর ছেলে ইসলাম কবিরাজ (৪৮), আবু বক্কর (৪২) ও আফজাল হোসেনের ছেলে ওয়াহেদ (৪৬)।

গত বৃহস্পতিবার (২৩ মার্চ) রাতে বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে এদের গ্রেফতার করেন। শুক্রবার (২৪ মার্চ) দুপুরে তাদের আদালতে পাঠানো হয়। 

উল্লেখ্য, আদমদীঘির নসরতপুর ইউপির লক্ষীপুর গ্রামে শাহিন হোসেন ও তহিদুল ইসলাম বনাম সেজদা ও আমিনুল ইসলাম নামের দুটি বিবাদমান দল রয়েছে। তাদের মধ্যে মসজিদের টাকা, গভীর নলকুপ মালিকানা ও গ্রামের আধিপত্য বিস্তার নিয়ে প্রায় ২০ বছর যাবত বিরোধ, মারধর ও মামলা পাল্টা মামলা ঘটনা ঘটে আসছে।

এ নিয়ে ওই গ্রামে প্রায় মারধর হুমকি ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা অহরহ ঘটে। গত বুধবার (২২ মার্চ) দিবাগত রাতে শাহিন হোসেন ও তার লোকজন বীর মুক্তিযোদ্ধার ছেলে আমিনুল ইসলামকে ক্লাব ঘরে সালিশ বৈঠকের কথা বলে মুঠোফোনে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে আসে। এরপর শেখর নামের এক ব্যক্তির পারিবারিক ঘটনা ও টাকা ভাগ-বাটোয়ারা নিয়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে আমিনুল ইসলামকে এলোপাথারী কুপিয়ে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। খবর পেয়ে রাতেই পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

এ ঘটনায় নিহতের বোন আফরোজা বেগম বাদী হয়ে শাহীনসহ ৩৭ জনের নাম উল্লেখ সহ অজ্ঞাত আরও অনেকের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করেন।

মামলার তদন্তকারী অফিসার উপ-পরিদর্শক কাওছার আলী জানায়, আমিনুল ইসলাম হত্যা মামলায় তিন জনকে গ্রেফতার করে গতকাল শুক্রবার দুপুরে বগুড়া আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে এবং অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চালানো হচ্ছে।

 

 

আরপি/এসআর-১৭



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top