রাজশাহী শুক্রবার, ২রা ডিসেম্বর ২০২২, ১৯শে অগ্রহায়ণ ১৪২৯


পাকিস্তানে বন্যায় মৃত্যু ৯০০ ছাড়িয়েছে


প্রকাশিত:
২৬ আগস্ট ২০২২ ১৬:৪৫

আপডেট:
২ ডিসেম্বর ২০২২ ১২:০৭

ছবি: সংগৃহীত

চলতি মৌসুমে পাকিস্তানে বন্য পরিস্থিতি মারাত্মক আকার ধারণ করেছে। এরই মধ্যে খাইবার পাখতুন প্রদেশের সরকার সোয়াতে জরুরি অবস্থা জরি করেছে। কারণ অব্যাহত ভারি বৃষ্টির কারণে এলাকাটিতে বন্যা নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গেছে। শুক্রবার (২৬ আগস্ট) জিও নিউজের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, সোয়াত, দির ও চিত্রালের পাহাড়ি এলাকা থেকে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারগুলোকে উদ্ধার করতে প্রাদেশিক কর্তৃপক্ষের অসুবিধা হচ্ছে।

কেপি ত্রাণ বিভাগের একটি বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, সোয়াতের বন্যাকবলিত এলাকায় ত্রাণ কার্যক্রমের জন্য জরুরি অবস্থা ৩০ আগস্ট পর্যন্ত কার্যকর থাকবে।

কেপির মুখ্যমন্ত্রী মাহমুদ খান ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য মুদি, রান্না করা খাবার ও অন্যান্য আইটেমগুলো সময়মত সরবরাহের পাশাপাশি এলাকায় ত্রাণ কার্যক্রম ত্বরান্বিত করার জন্য প্রাদেশিক দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষকে (পিডিএমএ) নির্দেশ দিয়েছেন।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, সোয়াতের মাট্টা, সুখরা ও লালকোতে যোগাযোগ সেতুও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

এদিকে পাকিস্তানজুড়ে প্রবল বর্ষণে সৃষ্ট বন্যায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৯০০ ছাড়িয়েছে। বন্যার সংকট মোকাবিলায় জলবায়ু পরিবর্তনবিষয়ক কেন্দ্রীয় মন্ত্রী শেরি রেহমান অবিলম্বে মানবিক সহায়তার আহ্বান জানিয়েছেন।


বর্তমানে চরম বিপর্যয় দেখা দিয়েছে দেশটিতে। ২০১০ সালে এমন বন্যা পরিস্থিতি দেখেছিল পাকিস্তানের মানুষ। মানবিক সংকট প্রকট আকার ধারণ করেছে। এই মুহুর্তে, সিন্ধু নদীর পানি উপচে সিন্ধু রাজ্য প্লাবিত হয়েছে, যা বিপর্যয়ের বর্তমান কেন্দ্রস্থল বলে মনে করা হচ্ছে।

 

আরপি/ এমএএইচ



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top