রাজশাহী মঙ্গলবার, ২৯শে নভেম্বর ২০২২, ১৬ই অগ্রহায়ণ ১৪২৯


অস্বচ্ছল শিক্ষার্থীদের সহায়তা দেবে ঢাবি শিক্ষক সমিতি


প্রকাশিত:
১৪ এপ্রিল ২০২০ ০৬:০৯

আপডেট:
২৯ নভেম্বর ২০২২ ০৭:৫৬

করোনাভাইসরাস পরিস্থিতিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) অস্বচ্ছল শিক্ষার্থীদের সহায়তা দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি। শিক্ষার্থীদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের চিঠিও ইতিমধ্যে দেয়া হয়েছে।


ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল ও সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. নিজামুল হক ভূঁইয়া স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে বলা হয়, কোভিড-১৯ ভাইরাস বিশ্বব্যাপী মানুষের জীবন প্রবাহে পরিবর্তন এনে দিয়েছে।


বাংলেদেশেও এর নেতিবাচক প্রভাব ক্রমশ বাড়ছে। এরইমধ্যে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে। এই ছুটি আরও দীর্ঘায়িত হতে পারে।


এই অবস্থার মধ্যে আমাদের শিক্ষার্থীরা তাদের বাড়িতে অবস্থান করছে। তাদের অনেকের খণ্ডকালীন কাজ ও টিউশনির অর্থে তাদের পরিবারের জীবনযাত্রার ব্যয় নির্বাহ হয়ে থাকে। ফলে এসব শিক্ষার্থী ও তাদের পরিবার চরম দুরাবস্থার মধ্যে পড়েছে।


চিঠিতে আরও বলা হয়েছে, আমাদের কিছু সহকর্মী এরইমধ্যে ব্যক্তিগত উদ্যোগে সহযোগিতা করেছেন। অনেকে আবার ইচ্ছা পোষণ করেছেন। কিন্তু এখনো অনেক শিক্ষার্থী সহযোগিতা থেকে বঞ্চিত। এসব শিক্ষার্থীদেরকে আর্থিক সহায়তা দিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি পদক্ষেপ নিতে চায়।


আমাদের শিক্ষক সমিতির ত্রাণ তহবিলে দুর্যোগকালে সহযোগিতা প্রদানের জন্য প্রয়োজনীয় অর্থ রয়েছে। সাধারণত এই ত্রাণ তহবিলের অর্থ বিপদাপন্ন মানুষের জন্য ব্যয় করা হয়। সমন্বিতভাবে এই অর্থ অধিক সংখ্যক শিক্ষার্থীদের সহযোগিতা দিতে শিক্ষক সমিতি বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গে আলোচনা করে একমত হয়েছে।


চিঠিতে আরও বলা হয়েছে, এরইমধ্যে অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন মাসিক ভিত্তিতে ৯৬৭ শিক্ষার্থীকে বৃত্তি প্রদান করে। অ্যালামনাইয়ের সঙ্গে আলোচনা করে সংকটকালীন এই সময়ে এসব শিক্ষার্থীদের অর্থ বিকাশের মাধ্যমে পাঠানোর ব্যবস্থা করেছে।


এছাড়া আরও ৭০০ শিক্ষার্থীকে বৃত্তি দিতে অ্যালামনাই একটা তালিকা প্রস্তুত করেছে। প্রতিটি বিভাগের শিক্ষকদের সমন্বয়ে এই তালিকা প্রস্তুত করা হয়েছে৷ শিক্ষক সমিতি শিক্ষার্থীদের সহায়তার ক্ষেত্রে এই তালিকার সহায়তা নেবে৷


এছাড়া আরও যাচাই করে এরইমধ্যে যারা সহযোগিতা পেয়েছেন তাদের এই তালিকার বাইরে রেখে সহায়তা করার পাশাপাশি এ বিষয়ে শিক্ষকদের পরামর্শ ও মতামত আগামী ১৫ মধ্যে জানানোর জন্য চিঠিতে অনুরোধ করা হয়।

 

আরপি/ এআর



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top