রাজশাহী বৃহঃস্পতিবার, ৩০শে মে ২০২৪, ১৭ই জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

মানব বসবাস উপযোগী আরও দুই গ্রহের সন্ধান


প্রকাশিত:
১৬ মে ২০২৩ ১৬:৩১

আপডেট:
৩০ মে ২০২৪ ০৯:৫৫

ফাইল ছবি

মানুষের বসবাসযোগ্য আরও দুই গ্রহের সন্ধান পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা। মার্কিন মহাকাশ গবেষণা প্রতিষ্ঠান নাসার টিইএএস মহাকাশযান এই দুইটি এক্সোপ্ল্যানেট সম্প্রতি আবিষ্কার করেছে। যেখানে প্রাণের সম্ভাবনা রয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এমনকি ভবিষ্যতে সেখানে মানুষ বসবাসও করতে পারে।

কেননা, এই দুইটি গ্রহই সূর্যের খুব কাছে রয়েছে। নতুন সন্ধান পাওয়া গ্রহ দুইটি আয়তনে পৃথিবীর চেয়ে বড়। এজন্য এগুলোকে সুপার আর্থ বলা হচ্ছে।

মহাকাশযান টিইএএস বা ট্রানজিটিং এক্সোপ্ল্যানেট সার্ভে স্যাটেলাইট সৌরজগৎ থেকে ১৩৭ আলোকবর্ষ দূরে এই গ্রহ দুইটি আবিষ্কার করেছে।

নতুন আবিষ্কৃত গ্রহ দুইটির নাম-টিওআই-২০৯৫বি এবং টিওআই-২০৯৫সি। এগুলো নিয়ে আরও গবেষণা চালাচ্ছেন বিজ্ঞানীরা।

টিওআই-২০৯৬বি গ্রহে প্রাণের বিকাশ ঘটতে পারে। এটি সূর্যের থেকে কিছুটা দূরে। এই গ্রহটি পৃথিবীর চেয়ে ১.৩৯ গুণ প্রশস্ত। কিন্তু এর ওজন পৃথিবীর চেয়ে ৪.১ গুণ বেশি।

ংঢ়ধপবদ্বিতীয় গ্রহ টিওআই-২০৯৫সি সূর্য থেকে সামান্য দূরে রয়েছে। এর একদিন পৃথিবীর ২৮.২ দিনের সমান। মানে এই গ্রহের ২৪ ঘন্টা পৃথিবীর ২৮.২ দিনের সমান। এটি পৃথিবীর চেয়ে ১.৩৩ গুণ বড়। ওজন ৭.৫ গুণ বেশি। উভয় গ্রহের পৃষ্ঠের তাপমাত্রাই ২৪ থেকে ৭৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে।

মার্কিন মহাকাশ সংস্থা নাসার টিইএসএস মহাকাশযানটি আলোর দ্বারা এই দুইটি গ্রহকে খুঁজে পেয়েছে। প্রতিটি গ্রহ ও নক্ষত্র আলো নির্গত করে। আর সেই আলোকে কেন্দ্র করেই বিজ্ঞানীরা সন্ধান করেছেন এই দুই নতুন গ্রহের।

গ্রহ দুইটি প্রচুর পরিমাণে অতিবেগুনী এবং এক্স-রে তরঙ্গ নির্গত করে। এগুলো থেকে নির্গত বিকিরণ কাছাকাছি যে কোনও গ্রহের বায়ুমণ্ডলকে ধ্বংস করতে পারে।

 

 

আরপি/এসআর-০৫


বিষয়: নাসা গ্রহ


আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

Top